ঢাকা, শনিবার,১৭ আগস্ট ২০১৯

ক্লাসিক

শতক পেরিয়ে, শার্লক হোমসের 'পুনর্জন্ম'!

২৩ ফেব্রুয়ারি ২০১৫,সোমবার, ০৭:৪৪


প্রিন্ট

মাথায় বোলার হ্যাট। পরনে লং কোর্ট-প্যান্ট। মুখে পাইপ। শার্লক হোমস-এর ক্ষুরধার বুদ্ধি আর ড. ওয়াটসনের বিচক্ষণতা। একের পর এক রহস্যের সমাধান। একশো বছরেরও বেশি সময় ধরে গোয়েন্দা জগতে রাজত্ব চালাচ্ছে শার্লক হোমস। আর্থার কোনান ডয়েলের সৃষ্ট এই চরিত্রের জনপ্রিয়তা কখনও কখনও খোদ লেখককেও ছাপিয়ে যায়।

এহেন শার্লক হোমস-এর আরও কিছু গল্প যে শতবছর ধরে আড়ালে ছিল, তা জানা ছিল না বিশ্ববাসীর। হ্যাঁ, প্রায় একশো বছর আগে আর্থার কোনান ডয়েলের শার্লক হোমস-এর আরও কিছু রহস্য গল্পের সন্ধান পেলেন এক ব্রিটিশ ইতিহাসবিদ। ৪৮ পাতার ওই মূল্যবান পাণ্ডুলিপির আবিষ্কার দুনিয়া জুড়ে আলোড়ন ফেলে দিয়েছে।

ওয়াল্টার ইলিয়ট নামে অশীতিপর ব্রিটিশ ইতিহাসবিদ জানিয়েছেন, সম্প্রতি তাঁর বাড়ির কয়েকটি প্রাচীন সিন্দুকের আবর্জনা ফেলতে

গিয়েই দেখতে পান একটি পাণ্ডুলিপির আকারে বই। পাতা উল্টে পড়ে রীতিমতো চমকে যান তিনি। বইটির নাম, 'শার্লক হোমস:

ডিসকভারিং দ্য বর্ডার বার্ঘস'। তত্‍ক্ষণাৎ তিনি বইটি নিয়ে গবেষণা শুরু করেন।

যাবতীয় তথ্য ঘেঁটে প্রমাণিত হয়েছে, এই বইটিই আর্থার কোনান ডয়েলের অপ্রকাশিত বই। ১৯০২ সালে স্কটিশ শহর সেলক্রিক শহরে ভয়াবহ বন্যা হয়। সেই বন্যার ত্রাণের তহবিল সংগ্রহের জন্যই বইটি লিখেছিলেন ডয়েল। তারপর বইটি কার্যত হারিয়ে যায়। এতদিন ছিল সবার অলক্ষ্যে।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫