ঢাকা, বৃহস্পতিবার,২৮ মে ২০২০

শিক্ষা

কোটা সংস্কার আন্দোলন

প্রজ্ঞাপন জারি না হলে আবারো আন্দোলনের ঘোষণা

৩০ এপ্রিল মতবি‌নিময় সভা

বিশ্ববিদ্যালয় প্রতি‌বেদক

২৬ এপ্রিল ২০১৮,বৃহস্পতিবার, ১৩:২১ | আপডেট: ২৬ এপ্রিল ২০১৮,বৃহস্পতিবার, ১৩:৩২


প্রিন্ট
সংবাদ সম্মেলন

সংবাদ সম্মেলন

কোনো কোটা থাকবে না ম‌র্মে জাতীয় সংসদে দেয়া প্রধানমন্ত্রী শেখ হা‌সিনার ঘোষণার ঘোষণার ১৫ দিন পার হলেও কোনো প্রজ্ঞাপন জারি না হওয়ায় অস্বস্তি বিরাজ কর‌ছে চল‌তি মা‌সের ম‌ধ্যে কোটা সংস্কা‌রের প্রজ্ঞাপন জা‌রির দা‌বি জা‌নি‌য়ে‌ছে বাংলাদেশ সাধারণ ছাত্র অধিকার সংরক্ষণ পরিষদের নেতারা। তা না হ‌লে আগামী মাস থে‌কেই আবার আন্দোল‌ন শুরু হ‌বে ব‌লে তারা জা‌নি‌য়ে‌ছেন।

আজ বৃহস্প‌তিবার দুপুরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় গ্রন্থাগা‌রের সামনে এক সংবাদ সম্মেলনে এই ঘোষণা দেন তারা।

সংবাদ সম্মেলনে পরিষদের যুগ্ম-আহ্বায়ক রাশেদ খান বলেন, আমরা প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণার প্রতি শ্রদ্ধাশীল। কিন্তু প্রধানমন্ত্রীর ঘোষণার এতদিন পার হয়ে যাওয়ার পরও কোনো প্রজ্ঞাপন জারি না হওয়ায় আমরা অস্বস্তিতে রয়েছি। কিন্তু প্রধানমন্ত্রীর সেই ঘোষণা যদি এই মাসের মধ্যে প্রজ্ঞাপন আকারে জারি না হয় তাহলে আমরা আবার আন্দোলনে যাবো।

লিখিত বক্তব্য আরেক যুগ্ম-আহ্বায়ক নুরুল হক নূর বলেন, আমাদের এই কোটা সংস্কার আন্দোলন শুরু থেকেই অহিংস ছিল। কিন্তু সেইদিন যারা বহিরাগত সন্ত্রাসী দ্বারা ভি‌সির বাসায় হামলা চালিয়েছে তাদের বিচার দাবি করছি। কিন্তু এই ঘটনাকে কেন্দ্র করে পুলিশ ৪টি মামলা এবং বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন অজ্ঞাতনামা মামলা দিয়েছে। আমরা চাই সুনির্দিষ্ট ব্যক্তিদের নামে মামলা হোক। অজ্ঞাতনামা মামলায় সাধারণ শিক্ষার্থীদের হয়রানির আশঙ্কা করছি।

নুরুল হক বলেন, ২১ এপ্রিল জনকন্ঠ পত্রিকা ‘টার্গেট সরকার পতন, গুলি চালিয়ে মৃত্যুর গুজব’ একটা নিউজ করে। যেটা সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন, বানোয়াট। আন্দোলনকে ভিন্নখাতে নেওয়ার চেষ্টা। আমরা এর তীব্র নিন্দা জানাচ্ছি। পত্রিকা যদি আজ বিকেল ৫টার মধ্যে এই নিউজের জন্য ক্ষমা প্রার্থনা না করে তাহলে ছাত্রসমাজ তাদের পত্রিকা বর্জন করবে।

এ সময় তি‌নি কো‌নো প‌ক্ষের দ্বারা কোটা সংস্কার আন্দোলনে অংশগ্রহণকারী‌দের হয়রানি না করার জন্য বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসনের কাছে আহ্বান জানান। পাশাপা‌শি আগামী ৩০ এপ্রিল ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসি মিলানয়তনে শিক্ষক-ছাত্র মতবিনিময় সভার আয়োজনের কথা জানানো হয়।

 

 

Logo

সম্পাদক : আলমগীর মহিউদ্দিন

প্রকাশক : শামসুল হুদা, এফসিএ

১ আর. কে মিশন রোড, (মানিক মিয়া ফাউন্ডেশন), ঢাকা-১২০৩।
ফোন: ৫৭১৬৫২৬১-৯

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত | নয়া দিগন্ত ২০১৫